হজ-উমরাহ সহজ করতে ‘নুসুক’ চালু করল সৌদি সরকার

সৌদি সরকারের ফ্ল্যাগশিপ উদ্যোগ ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম নুসুক (nusuk.sa) চালু হয়েছে বাংলাদেশে।

হজ-উমরাহ সহজ করতে ‘নুসুক’ চালু করল সৌদি সরকার

সৌদি সরকারের ফ্ল্যাগশিপ উদ্যোগ ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম নুসুক (nusuk.sa) চালু হয়েছে বাংলাদেশে। মক্কা ও মদীনায় উমরাহ ও হজ্জ পরিকল্পনা ঝামেলামুক্ত করতে এবং পর্যটকদের ভ্রমণে সহায়তা দেবে এই বিশেষ অ্যাপ। নুসুক ব্যবহার করে সারা বিশ্বের ভ্রমণকারীরা খুব সহজেই তাদের ভিজিট পরিকল্পনা সাজাতে পারেন, যার মধ্যে রয়েছে ই-ভিসার জন্য আবেদন থেকে শুরু করে ফ্লাইট ও হোটেল বুকিং এর সুবিধা। এতে বাংলাদেশি যাত্রীদের এজেন্সিকেন্দ্রীক বিড়ম্বনা কমবে বলে আশা করছে কর্তৃপক্ষ।

 

আজ বৃহস্পতিবার বাংলাদেশে তাদের প্রথম রোডশো আয়োজন করে। বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলনকেন্দ্রে অনুষ্ঠিত এই রোডশোতে সৌদি হজ্জ ও উমরাহ বিষয়ক মন্ত্রী ড. তৌফিগ আল-রাবিয়াহ, নুসুক এপাক (এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল) প্রেসিডেন্ট আলহাসান আলদাববাগসহ উচ্চপদস্থ সৌদি সরকারি ও বেসরকারি কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। বাংলাদেশি উমরাহ প্রতিষ্ঠান, টুযর অপারেটর, ট্রাভেল এজেন্সি, ট্রেড অ্যাসোসিয়েশনসহ বিভিন্ন ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান ও সংগঠন অংশগ্রহণ করে।

 

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে জানানো হয়, এই আধুনিক সমন্বিত ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে যেসকল বাংলাদেশি ধর্মীয় এবং পর্যটনের উদ্দেশ্যে সৌদি আরব ভ্রমণ করার পরিকল্পনা করছেন, তারা বিশেষভাবে উপকৃত হবেন।

 

সৌদি হজ্জ ও উমরাহ বিষয়ক মন্ত্রী এবং হজ্জ ও উমরাহ অভিজ্ঞতা কর্মসূচির চেয়ারম্যান ড. তৌফিগ আল-রাবিয়াহ বলেন, বাংলাদেশের সাথে আমাদের ভ্রাতৃসুলভ সম্পর্ক সময়ের বিচারে পরীক্ষিত ও প্রমাণিত। এই সম্পর্ককে আমরা একটি নতুন উচ্চতায় নিয়ে যেতে চাই এবং আমরা বর্তমানে দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতার সম্ভাব্য নতুন ক্ষেত্রগুলো নিয়ে কাজ করছি।

 

তিনি বলেন, দুটি পবিত্র মসজিদের জিম্মাদার হিসেবে সারা পৃথিবী থেকে আল্লাহর অতিথিদের স্বাগত জানাতে পারা আমাদের জন্য অনেক সম্মানের এবং গর্বের। হজ্জ ও উমরাহ পালন নিরাপদ, সুগম, ঝামেলামূক্ত এবং আরামদায়ক করার জন্য প্রয়োজনীয় সব কিছু করতে আমরা প্রতিজ্ঞাবদ্ধ এবং এটা আমাদের পবিত্র দায়িত্বও বটে।

 

 

বাণিজ্য

 

প্রকাশ: ২৪ আগস্ট, ২০২৩ ১৯:৫৯

হজ-উমরাহ সহজ করতে ‘নুসুক’ চালু করল সৌদি সরকার

 নিজস্ব প্রতিবেদক

 

হজ-উমরাহ সহজ করতে ‘নুসুক’ চালু করল সৌদি সরকার

 

সৌদি সরকারের ফ্ল্যাগশিপ উদ্যোগ ডিজিটাল প্ল্যাটফর্ম নুসুক (nusuk.sa) চালু হয়েছে বাংলাদেশে। মক্কা ও মদীনায় উমরাহ ও হজ্জ পরিকল্পনা ঝামেলামুক্ত করতে এবং পর্যটকদের ভ্রমণে সহায়তা দেবে এই বিশেষ অ্যাপ। নুসুক ব্যবহার করে সারা বিশ্বের ভ্রমণকারীরা খুব সহজেই তাদের ভিজিট পরিকল্পনা সাজাতে পারেন, যার মধ্যে রয়েছে ই-ভিসার জন্য আবেদন থেকে শুরু করে ফ্লাইট ও হোটেল বুকিং এর সুবিধা। এতে বাংলাদেশি যাত্রীদের এজেন্সিকেন্দ্রীক বিড়ম্বনা কমবে বলে আশা করছে কর্তৃপক্ষ।

 

 

আজ বৃহস্পতিবার বাংলাদেশে তাদের প্রথম রোডশো আয়োজন করে। বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলনকেন্দ্রে অনুষ্ঠিত এই রোডশোতে সৌদি হজ্জ ও উমরাহ বিষয়ক মন্ত্রী ড. তৌফিগ আল-রাবিয়াহ, নুসুক এপাক (এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল) প্রেসিডেন্ট আলহাসান আলদাববাগসহ উচ্চপদস্থ সৌদি সরকারি ও বেসরকারি কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। বাংলাদেশি উমরাহ প্রতিষ্ঠান, টুযর অপারেটর, ট্রাভেল এজেন্সি, ট্রেড অ্যাসোসিয়েশনসহ বিভিন্ন ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠান ও সংগঠন অংশগ্রহণ করে।

 

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে জানানো হয়, এই আধুনিক সমন্বিত ডিজিটাল প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে যেসকল বাংলাদেশি ধর্মীয় এবং পর্যটনের উদ্দেশ্যে সৌদি আরব ভ্রমণ করার পরিকল্পনা করছেন, তারা বিশেষভাবে উপকৃত হবেন।

 

 

সৌদি হজ্জ ও উমরাহ বিষয়ক মন্ত্রী এবং হজ্জ ও উমরাহ অভিজ্ঞতা কর্মসূচির চেয়ারম্যান ড. তৌফিগ আল-রাবিয়াহ বলেন, বাংলাদেশের সাথে আমাদের ভ্রাতৃসুলভ সম্পর্ক সময়ের বিচারে পরীক্ষিত ও প্রমাণিত। এই সম্পর্ককে আমরা একটি নতুন উচ্চতায় নিয়ে যেতে চাই এবং আমরা বর্তমানে দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতার সম্ভাব্য নতুন ক্ষেত্রগুলো নিয়ে কাজ করছি।

 

তিনি বলেন, দুটি পবিত্র মসজিদের জিম্মাদার হিসেবে সারা পৃথিবী থেকে আল্লাহর অতিথিদের স্বাগত জানাতে পারা আমাদের জন্য অনেক সম্মানের এবং গর্বের। হজ্জ ও উমরাহ পালন নিরাপদ, সুগম, ঝামেলামূক্ত এবং আরামদায়ক করার জন্য প্রয়োজনীয় সব কিছু করতে আমরা প্রতিজ্ঞাবদ্ধ এবং এটা আমাদের পবিত্র দায়িত্বও বটে।

 

হজ্জ ও উমরাহ পালনকারীদের অভিজ্ঞতা আরো সমৃদ্ধ করতে আমরা নিরলস কাজ করে যাচ্ছি।

ফাহদ হামিদাদ্দিন, নুসুক ব্যবস্থাপনা পরিচালক বলেন, বাংলাদেশে আমাদের উদ্বোধনী রোডশো আমাদের প্রত্যাশাকে ছাড়িয়ে গেছে। ক্রস-গভর্নমেন্ট এবং ট্রেড পার্টনারদের সহযোগিতায়, বাংলাদেশি ভ্রমণকারীদের জন্য অসাধারণ সম্ভাবনার দ্বার উন্মোচনে আমাদের সহায়তা করেছে। ঐতিহাসিকভাবেই বাংলাদেশ আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ একটি অংশীদার এবং সৌদির ভিশন ২০৩০ অর্জনের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ কৌশলগত বাজার হিসাবে বিবেচিত। এ বছর এখন পর্যন্ত আমাদের দেশে তিন লাখ ৩২ হাজারের বেশি বাংলাদেশি ভ্রমণকারীকে স্বাগত জানিয়েছি।

 

২০৩০ সালের মধ্যে এই সংখ্যা তিন মিলিয়ন হবে বলে আমরা আশা রাখি। ভবিষ্যতে আমরা আমাদের প্রধান বাণিজ্য অংশীদারদের সাথে এবং আমাদের ভাই ও বোনদের ওমরাহ পালনের স্বপ্ন, এবং ধর্মীয় ও সাংস্কৃতিক সমৃদ্ধি পূরণের সুবিধার্থে তাদের সাথে আরো ঘনিষ্ঠভাবে সহযোগিতা করার বিষয়ে আগ্রহী।

নুসুক এপাক (এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল) প্রেসিডেন্ট আলহাসান আলদাববাগ বলেন, আমাদের লক্ষ্য নুসুকের মাধ্যমে বাংলাদেশিদের জন্য সৌদি আরব ভ্রমণ আরো সহজ ও সুগম করা, বিশেষ করে উমরাহ পালনকারীদের জন্য, যাদের সংখ্যা ক্রমান্বয়েই বাড়ছে। সৌদি আরবে লক্ষ্যে নুসুককে এগিয়ে নিয়ে যাবার জন্য বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করেছে। মুসলিম ভ্রমণকারীরা বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে উমরাহ ভিসার জন্য আবেদন করতে পারবেন।

 

ভিসা প্রদানের ক্ষেত্রে সৌদি সরকার বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করেছে, যার মধ্যে রয়েছে ভিসা প্রক্রিয়া সহজীকরণ, ইভিসা সেবা, যুক্তরাজ্য/ যুক্তরাষ্ট্র/ শেনঝেন নাগরিক বা ভিসাধারীদের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ইভিসা প্রদান, এ ছাড়া বাংলাদেশিরা উমরাহ পালনের পাশাপাশি দেশটির অনন্য সাংস্কৃতিক বৈচিত্র্য উপভোগ করার সুযোগ পাচ্ছেন। উমরাহ ভিসার মেয়াদ ৯০ দিন পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়েছে এবং যেকোনো ভিসাধারী জমজমের পানি পাওয়ার অধিকার রাখেন। বাংলাদেশিরা প্রয়োজনে ৯৬ ঘণ্টার স্টপওভার ভিসা নিয়েও উমরাহ পালন করতে পারবেন।

 

বাংলাদেশ সৌদি আরবের জন্য একটি কেৌশলগতভাবে গুরুত্বপূর্ণ মার্কেট এবং এ বছর অদ্যবধি ৩৩২,০০০ বাংলাদেশি সৌদি আরব ভ্রমণ করেছেন এবং ২০৩০ সাল নাগাদ এই সংখ্যা ২৬ লাখে পৌঁছবে বলে আশা করা হচ্ছে। সৌদি সরকার বিভিন্ন পার্টনারদের সঙ্গে সম্পর্ক জোরদার করছে এবং স্থানীয় পার্টনারদের সঙ্গে বাংলাদেশের মানুষের জন্য বিভিন্ন আকর্ষণীয় অফার প্রনয়নে কাজ করছে।

 

নুসুক ২০২২ সালে চালু করা হয়। এটি সৌদি সরকারের প্রথম অফিসিয়াল প্ল্যানিং, বুকিং, এবং এক্সপেরিয়েন্স প্ল্যাটফর্ম যার লক্ষ্য মক্কা ও মদীনায় উমরাহ ও হজ্জ পরিকল্পনা করতে সাহায্য এবং একই সঙ্গে অন্যান্য স্থান ভ্রমণেও সহায়তা প্রদান। ভবিষ্যতে এই প্ল্যাটফর্মে গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনা ভিজিট, পরিবহণ সুবিধা লাভ, অনগ্রাউন্ড বিভিন্ন টুলস যেমন তাওয়াফ ট্র্যাকার ও অন্যান্য সুবিধা যুক্ত হবে।